দৃষ্টিজয়ীদের পাশে ইজেনারেশন

টেকভয়েস২৪ রিপোর্ট:: দৃষ্টিজয়ীদের পাশে দাড়ানোর প্রত্যয় নিয়ে ইজেনারেশন পিএলসি একজন দৃষ্টিজয়ীকে নিয়োগপত্র প্রদান করেছে।

জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মদিন ও জাতীয় শিশু দিবস ২০২৪ উদ্‌যাপন উপলক্ষ্যে গত ২০ মার্চ রাজধানীর আগারগাও-তে অবস্থিত সিকিউরিটিজ কমিশন ভবনে বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি) কর্তৃক বঙ্গবন্ধু’র বর্ণাঢ্য জীবন ও আদর্শের উপর আলোচনাসভা, দোয়া এবং ‘দৃষ্টিজয়ীদের জন্য চাকরি মেলা’র আয়োজন করা হয়।

উক্ত চাকরি মেলায় পাঁচজন দৃষ্টিজয়ী অংশগ্রহণ করে চাকরি নিশ্চিত করেন।

উক্ত অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী আহসানুল ইসলাম টিটু, বিশেষ অতিথি বাংলাদেশ ইনস্যুরেন্স অ্যাসোসিয়েশন এর সভাপতি শেখ কবির হোসেন, সভাপতি বাংলাদেশ সিকিউরিটিজ অ্যান্ড এক্সচেঞ্জ কমিশন (বিএসইসি) এর চেয়ারম্যান অধ্যাপক শিবলী রুবাইয়াত-উল-ইসলাম ও বিএসইসি’র কমিশনারগণ এর উপস্থিতিতে ইজেনারেশন পিএলসি এর প্রতিষ্ঠাতা ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক শামীম আহসান দৃষ্টিজয়ী আমরিন নাহার রিমিকে চাকুরিতে নিয়োগের সনদ হস্তান্তর করেন।

অনুষ্ঠানের প্রধান অতিথি বাণিজ্য প্রতিমন্ত্রী আহসানুল ইসলাম টিটু দেশের উন্নয়নে তথা স্মার্ট অর্থনীতি ও পুঁজিবাজার গড়ে তুলতে সকলকে ঐক্যবদ্ধভাবে কাজ করার আহ্বান জানান। তিনি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মদিন ও জাতীয় শিশু দিবস উপলক্ষ্যে বিএসইসি’র ‘দৃষ্টিজয়ীদের জন্য চাকুরি মেলা’র আয়োজন এবং চাকুরিতে নিয়োগদাতা প্রতিষ্ঠানসমূহ’র প্রশংসা করেন।

বিএসইসি’র চেয়ারম্যান অধ্যাপক শিবলী রুবাইয়াত-উল-ইসলাম উক্ত অনুষ্ঠানে স্বাগত বক্তব্যে স্বাধীনতার মাসে জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের জন্মবার্ষিকীতে বঙ্গবন্ধুকে শ্রদ্ধাভরে স্মরণ করেন। ব্যাংক, বীমা তথা সামগ্রিক অর্থনৈতিক উন্নয়নে বঙ্গবন্ধুর অসামান্য অবদানের কথাও তিনি তার বক্তব্যে তুলে ধরেন। বিশেষ এই দিবস উপলক্ষ্যে আয়োজিত দৃষ্টিজয়ীদের জন্য চাকুরি মেলা’তে দৃষ্টিজয়ীদের পাশে দাঁড়ানো এবং চাকুরিতে নিয়োগ প্রদানের জন্য নিয়োগদাতা প্রতিষ্ঠান এর প্রতি কৃতজ্ঞতা প্রকাশ করেন।

ইজেনারেশন পিএলসি এর প্রতিষ্ঠাতা ও ব্যবস্থাপনা পরিচালক শামীম আহসান বলেন, ইজেনারেশন প্রযুক্তিগতভাবে সমাজ ও মানবতার কল্যাণে ইতিবাচক প্রভাব ফেলে এমন উদ্যোগ নিয়ে বরাবরই কাজ করে আসছে। তারই অংশ হিসাবে কৃষকদের ফসল উৎপাদন বাড়ানোর জন্য ফার্টিলাইজার রিকমেন্ডেশন সফটওয়্যার, কোভিডকালীন সময়ে প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের জন্য কোভিড ড্যাশবোর্ড নির্মাণ, কোভিডকালীন সময়ে ন্যায় বিচার চলমান রাখার জন্য ভার্চুয়াল কোর্ট সিস্টেম, স্বাস্থ্যসেবা অটোমেশনের জন্য এইচএমআইএস (HMIS) সফটওয়্যার এবং বিশেষভাবে সক্ষম শিশুদের জন্য ই-সার্ভিস প্লাটফর্ম ফর ট্রিটমেন্ট এন্ড এডুকেশন নির্মাণ করে। দৃষ্টিজয়ী এবং পিছিয়ে পড়া জনগোষ্ঠীর জন্য আজকের মহতী উদ্যোগের সাথে নিজেদের শামিল হওয়া আমাদের সামাজিক কর্তব্যেরই অংশ এবং ভবিষ্যতেও এমন ইতিবাচক কাজে আমরা সবসময় পাশে থাকবো।

ইজেনারেশন ছাড়াও চাকরি প্রদানকারী অন্যান্য চারটি প্রতিষ্ঠান হলো, চট্টগ্রাম স্টক এক্সচেঞ্জ পিএলসি, বাংলাদেশ অ্যাসোসিয়েশন অফ সফটওয়্যার অ্যান্ড ইনফরমেশন সার্ভিসেস (বেসিস), জাপান বাংলাদেশ ফ্রেন্ডশিপ হাসপাতাল, এবং থ্রি-আই অ্যাসেট ম্যানেজমেন্ট কোম্পানি লিমিটেড।

image_printপোস্টটি প্রিন্ট করতে ক্লিক করুন...