ভিভোর স্মার্টফোনে শর্টফিল্ম তৈরি করলে মিলবে পুরস্কার

টেকভয়েস২৪ রিপোর্ট:: স্মার্টফোন দিয়ে এখন হরহামেশাই স্বল্পদৈর্ঘ্যের চলচ্চিত্র নির্মিত হচ্ছে। নির্মাণের এই মাধ্যমকে আরও উৎসাহ দিতে বিশ্বব্যাপী ভিভো আয়োজন করেছে স্বল্পদৈর্ঘ্যের চলচ্চিত্র প্রতিযোগিতা।

হাতে থাকা যেকোন স্মার্টফোন কিংবা ভিভো স্মার্টফোন দিয়ে স্বল্পদৈর্ঘ্যের চলচ্চিত্র তৈরি করে জিতে নেবার সুযোগ আছে বিরাট অঙ্কের অর্থসহ নানা পুরস্কার।

ভিভো এক্স৮০ ফাইভজি স্মার্টফোন নজর কেড়েছে পেশাদার সিনেমাটোগ্রাফারদের। এরই মধ্যে এই স্মার্টফোন দিয়ে নির্মিত শর্টফিল্ম ‘চক্রাকার’ সাড়া ফেলেছে বেশ। ভিভো এক্স৮০ ফাইভজি স্মার্টফোনের বৈচিত্র্যময় দক্ষতা দেখে এরই মধ্যে এ নিয়ে ভিডিওগ্রাফি জনপ্রিয় হয়েছে। একাধিক ইউটিউবার স্মার্টফোনটির দারুণ দক্ষতা তুলে ধরেছেন।

ভিভো আয়োজন করেছে ‘ভিজ্যুয়াল ক্রিয়েটর’ শর্ট ফিল্ম প্রতিযোগিতা। ‘ভিজ্যুয়াল ক্রিয়েটর’ শর্ট ফিল্ম প্রতিযোগিতা শিরোনামের এই ক্যাম্পেইন শুরু হয়েছে ১৫ জুন থেকে, যা চলবে ২৪ অক্টোবর পর্যন্ত।

এতে শিক্ষার্থীসহ নানা পেশা ও বয়সের মানুষ অংশ নিতে পারবেন। প্রতিযোগিতায় অংশগ্রহণকারীদের নাম নিম্নল্লিখিত হ্যাশট্যাগ দিয়ে #vivoVisualCreator #OurStoryRedefined সোশ্যাল মিডিয়ায় (ফেসবুক, ইনস্টাগ্রাম এবং টুইটার) আপলোড করতে বলা হয়েছে আর ট্যাগ করতে হবে লোকাল বা গ্লোবাল যেকোন ভিভো একাউন্ট।

বিজয়ীদের নাম ঘোষণা করা হবে আগামী ১১ নভেম্বর। দুইটি ক্যাটাগরিতে অ্যাওয়ার্ড দেওয়া হবে। গ্লোবাল অ্যাওয়ার্ড ও আ লিক অ্যাওয়ার্ড। প্রতিটি বিষয়ে গ্লোবাল অ্যাওয়ার্ড জয়ী পাবেন ৭০০০ ডলার করে পুরস্কার। রিজিওনাল অ্যাওয়ার্ড জয়ী পাবেন ৩০০০ ডলার পুরস্কার। বাড়তি পুরস্কার হিসেবে থাকছে অ্যাওয়ার্ড সার্টিফিকেট, ভিভো এক্স৮০ সিরিজের স্মার্টফোন, বিচারকদের প্রশংসাপত্র এবং ভিভোর উদ্যেগে প্রচারণা।

গ্লোবাল ক্যাটাগরিতে ৫টি বিষয় রয়েছে। বেস্ট ফিল্ম, বেস্ট স্টোরি, বেস্ট এডিটিং, বেস্ট ফটোগ্রাফি, বেস্ট ক্রিয়েটর। অন্যদিকে রিজিওনাল অ্যাওয়ার্ড ক্যাটাগরিতে বেস্ট ফিল্ম পাবে নির্ধারিত পুরস্কার।

ভিভো সব সময় তাদের গ্রাহকদের সবচেয়ে ভালোটা দিয়ে আসছে আর এজন্যই প্রযুক্তি ও উদ্ভাবনী শক্তির মেলবন্ধন ঘটিয়ে থাকে তারা। জেইসের সাথে সমন্বয় করে ক্যামেরার যে উন্নতি ভিভো করেছে এর মাধ্যমে বোঝা যায় ভিভো তার ব্যবহারকারীদের ভারী বা বড় কোন ডিভাইস ছাড়াই ভালো মানের সিনেমাটোগ্রাফি দিতে প্রস্তুত।

সম্প্রতি কয়েকবছরে ইমেজিং প্রযুক্তিতে পরিবর্তন এসেছে আর সিনেমাটোগ্রাফিতে এই পরিবর্তন লক্ষণীয়। ভিভোর মাধ্যমে আজ স্মার্টফোনের ক্যামেরা দিয়েই প্রফেশনাল শ্যুট করা সম্ভব। ভিভো এক্স৮০ তে রয়েছে এর ৫০ মেগাপিক্সেল আল্ট্রা সেন্সিং সেন্সর ক্যামেরা, ১২ মেগাপিক্সেল পোর্ট্রেট ক্যামেরা ও প্রধান প্যানেলে রয়েছে ১২ মেগাপিক্সেল ওয়াইড অ্যাঙ্গেল ক্যামেরা যা অনেক প্রফেশনাল সিনেমাটোগ্রাফারদের পছন্দের অন্যতম জায়গা। আবার জেইসের সাথে সমন্বয় করে এই ক্যামেরা সিস্টেমকে আরো উন্নত করা হয়েছে।

‘ভিজ্যুয়াল ক্রিয়েটর’ শর্ট ফিল্ম প্রতিযোগিতা সম্পর্কে বিস্তারিত জানতে ভিজিট করুন ভিভো বাংলাদেশ এর অফিসিয়াল এই ওয়েবসাইটে

image_printপোস্টটি প্রিন্ট করতে ক্লিক করুন...