খ্রীষ্টান হাউজিং সোসাইটির বার্ষিক সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত
ছবি: সংগৃহীত

টেকভয়েস২৪ ডেস্ক :: গাজীপুর জেলার কালীগঞ্জ থানার কুচিলাবাড়ীতে অনুষ্ঠিত হলো দি মেট্রোপলিটান খ্রীষ্টান কো-অপারেটিভ হাউজিং সোসাইটি লি’র ৩৩তম বার্ষিক সাধারণ সভা-২০২০।

৯ অক্টোবর সকাল সাড়ে ১০টায় কুচিলাবাড়ী কালব রিসোর্ট এন্ড ট্রেনিং সেন্টারে সোসাইটির চেয়ারম্যান আগষ্টিন পিউরীফিকেশনের সভাপতিত্বে ও সেক্রেটারি ইমানুয়েল বাপ্পী মন্ডলের সঞ্চালনায় এই বার্ষিক সাধারণ সভা অনুষ্ঠিত হয়।

বার্ষিক সাধারণ সভায় বিশেষ অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন দি খ্রীষ্টান কো-অপারেটিভ ক্রেডিট ইউনিয়ন লি:, ঢাকা (ঢাকা ক্রেডিট)- এর প্রেসিডেন্ট পংকজ গিলবার্ট কস্তা, দি কো-অপারেটিভ ক্রেডিট ইউনিয়ন লীগ অব বাংলাদেশ লি:-এর চেয়ারম্যান জোনাস ঢাকী,

দি সেন্ট্রাল এসোসিয়েশন অব খ্রীষ্টান কো-অপারেটিভস (কাককো) লি:-এর চেয়ারম্যান নির্মল রোজারিও, তেজগাঁও থানা সমবায় কর্মকর্তা রেজাউল বারী, ঢাকা উত্তর সিটি কর্পোরেশনের ৪৬ নং ওয়ার্ডের কমিশনার জাহিদুল ইসলাম মোল্লা, ঢাকা ক্রেডিটের কর্মকর্তাসহ হাউজিং সোসাইটির প্রতিনিধিবৃন্দ।

বার্ষিক সাধারণ সভায় ঢাকা ক্রেডিটের প্রেসিডেন্ট পংকজ গিলবার্ট কস্তা বলেন, আমাদের খ্রিষ্টান সমাজের সমবায় প্রতিষ্ঠানগুলো এখন বড় হচ্ছে। তাই এখন আইনের শাসন প্রয়োজন।

সমিতিগুলো স্বচ্ছতার সহিত চলতে এই আইনের শাসন প্রতিষ্ঠা করতে হবে। সেই সাথে সময় এসেছে সকল সমিতিগুলোর ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করার। কারণ, এই প্রতিযোগিতার সময়ে ঐক্যবদ্ধ হয়ে কাজ করার কোনো বিকল্প নেই।

প্রেসিডেন্ট কস্তা বলেন, ঢাকা ক্রেডিটের মেগা প্রকল্প ডিভাইন মার্সি জেনারেল হাসপাতালের নির্মাণ কাজ এগিয়ে যাচ্ছে যাচ্ছে। অচিরেই এই হাসপাতালের চিকিৎসা কার্যক্রম শুরু হবে।

পর্যায়ক্রমে হাসপাতালের সাথে মেডিকেল কলেজ ও নার্সিং কলেজ অন্তর্ভুক্ত হবে। এখান থেকে সবাই সেবা নিতে পারবে। সেই সাথে আমাদের ছেলেমেয়েরা এখানে পড়াশোনা করে গর্বের সাথে বলতে পারবে, আমরা সমবায় প্রতিষ্ঠানের হাসপাতাল থেকে পড়াশোনা করেছি।

সোসাইটির চেয়ারম্যান আগষ্টিন পিউরীফিকেশন বলেন, আপনাদের স্বাগত জানাই আজকের দিনে এই সভায় সবাই উপস্থিত হয়েছেন। সেই সাথে ধন্যবাদ জানাই বিগত সময়গুলোতে আপনারা আমাদের সহযোগিতা করেছেন।

২০১২ সালে আমরা দায়িত্ব নেওয়ার সময় প্রতিষ্ঠানের সম্পদ-পরিসম্পদ ছিল ২১৫ কোটি টাকা। ২০২০ সালে আমরা সম্পদ-পরিসম্পদের পরিমাণ বাড়িয়ে ১৫০০ কোটি টাকায় উন্নীত করেছি।

এর মাধ্যমেই আপনারা বুঝতে পারছেন এই প্রতিষ্ঠানের উন্নতি। আমরা সোসাইটিকে সুগঠিত করে নতুন নতুন প্রকল্প হাতে নিয়েছি। আশা করি সেই সব প্রকল্পের মাধ্যমে প্রতিষ্ঠানের আয় বাড়বে এবং কর্মসংস্থানেরও সৃষ্টি হবে।

এ সময় তিনি সোসাইটির বিভিন্ন কার্যক্রমের চিত্র তুলে ধরেন।

সভায় অন্যান্য বক্তারা প্রতিষ্ঠানের কার্যক্রমের প্রশংসা করেন। সেই সাথে দক্ষ নেতৃত্ব সৃষ্টির মাধ্যমে সমাজকে সামনের দিকে এগিয়ে নেওয়ার আহ্বান জানান।

বার্ষিক সাধারণ সভার শুরুতে জাতীয় সংগীতের মাধ্যমে জাতীয় পতাকা ও সমবায়ী পতাকা উত্তোলন, প্রার্থনা এবং মৃত সদস্যদের আত্মার কল্যাণে নিরবতা পালন করা হয়।

এরপর অতিথিদের ফুল দিয়ে বরণ করে নেওয়া হয়। অনুষ্ঠানের বিশেষ অতিথিদের হাতে সম্মাননা স্মারক তুলে দেন সোসাইটির চেয়ারম্যান আগষ্টিন পিউরীফিকেশন।

সাধারণ সভায় বিগত ৩২তম সাধারণ সভার কার্যবিবরণী পাঠ ও অনুমোদন, ব্যবস্থাপনা কমিটির প্রতিবেদন পর্যালোচনা ও অনুমোদন, বার্ষিক হিসাব বিবরণী বিবেচনা ও অনুমোদ, উদ্বৃত্ত পত্র ও নিরিক্ষা প্রতিবেদন পর্যালোচনা ও অনুমোদন,

বাজেট পর্যালোচনা ও অনুমোদন, আয়বর্ধক প্রকল্প নিয়ে আলোচনা ও সিদ্ধান্ত গ্রহণ, উপ-আইন সংশোধন, ঋণদান কমিটির প্রতিবেদন পেশ ও অনুমোদন এবং আভ্যন্তরীণ নিরীক্ষা ও পর্যবেক্ষণ কমিটির প্রতিবেদন পেশ ও অনুমোদনসহ বিভিন্ন বিষয় নিয়ে আলোচনা করা হয়। সূত্র: ডিসিনিউজ

image_printপোস্টটি প্রিন্ট করতে ক্লিক করুন...