ফৈলজানা ধর্মপল্লীতে যুব সেমিনার অনুষ্ঠিত
ছবি: সংগৃহীত

ফাদার বিকাশ কুজুর, সিএসসি

“আমরা হলাম দায়িত্বপ্রাপ্ত সেবক-সেবিকা। তাই আমাদের দায়িত্ব রয়েছে সৃষ্টি ও কৃষ্টিকে লালন-পালন এবং নিজ নিজ কৃষ্টিতে জীবনযাপন করার।”

গত ২৪ জুলাই ফৈলজানা ধর্মপল্লীতে ফৈলজানা খ্রিস্টান যুব সংঘের উদ্যোগে আয়োজিত দিনব্যাপী যুব সেমিনারের উদ্বোধনী খ্রিস্টযাগের উপদেশে এসব কথা বলেন ধর্মপল্লীর পাল-পুরোহিত ফাদার অ্যাপলো রোজারিও, সিএসসি।

‘আমরা হলাম দায়িত্বপ্রাপ্ত সেবক’ মূলসুর নিয়ে সকাল ৮:৩০ ঘটিকায় খ্রিস্টযাগ উৎসর্গের মধ্য দিয়ে শুরু হয় দিনব্যাপী এই যুব সেমিনারের।

ওইদিন সকাল হতে ধর্মপল্লীর বিভিন্ন গ্রাম থেকে ৬ষ্ঠ শ্রেণী হতে তদুর্ধ্ব ছাত্রছাত্রীরা মিশন প্রাঙ্গণে এসে উপস্থিত হয়।

খ্রিস্টযাগের পর অতিথিদের বরণ ও আহ্বায়কের শুভেচ্ছা বক্তব্যের মধ্য দিয়ে প্রথম অধিবেশন শুরু হয়।

‘আমরা হলাম দায়িত্বপ্রাপ্ত সেবক’ এই মূলসুরের উপর সেশন পরিচালনা করেন সহকারী পাল-পুরোহিত ফাদার বিকাশ কুজুর, সিএসসি।

তিনি বলেন, “যুবক-যুবতি হিসেবে আমাদের দায়িত্ব রয়েছে সৃষ্টিকে যত্ন নেয়ার এবং কৃষ্টিকে আপন করে তা জীবনভর অনুশীলন করার। পাশাপাশি, নিজেদের জীবনের উন্নয়ন ঘটিয়ে কৃষ্টি এবং সমাজকে উন্নত করারও দায়িত্ব আমাদের।”

সেশনের পর দলীয় আলোচনা ও রিপোর্টিং করা হয়। রিপোর্টিং শেষে বিগত বছরের মূলসুরের আঙ্গিকে পর্যালোচনা করেন সংঘের সাধারণ সম্পাদক উইলিয়াম গমেজ।

সকলের সুন্দর ও সক্রিয় অংশগ্রহণের জন্য ধন্যবাদ জ্ঞাপন করেন সংগঠনের সভাপতি সীমান্ত পিটার গমেজ।

দুপুরের আহারের শেষে সাংস্কৃতিক অনুষ্ঠানের মধ্য দিয়ে সারাদিনব্যাপী এ সেমিনার সমাপ্ত হয়।

image_printপোস্টটি প্রিন্ট করতে ক্লিক করুন...